ডিম দিয়ে আলু ভাজি রেসিপি- নুসরাত জাহান

ডিম দিয়ে আলু ভাজি   একটি সুষম ও পুষ্টিকর খাবার। সকালের নাস্তায় এটি একটি চমৎকার খাবার। ডিম  আলু ভাজি  আমাদের  দৈনন্দিন খাবারের তালিকায় থাকে। বিশেষ করে ডিম দিয়ে আলু ভাজি  শিশুদের প্রিয় একটি খাবার।  শিশুদের খাবারকে সুস্বাদু করতে এবং তাদের খাবার এ আগ্রহ বাড়াতে ডিম দিয়ে আলু ভাজি রেসিপি  এর তুলনা হয় না। 

ডিম আলু ভাজি  করে আমরা ভাত, রুটি, পরোটা ইত্যাদির সাথে খেতে পারি। আমরা বিভিন্ন ভাবে বা বিভিন্ন পদ্ধতিতে ডিম  আলু ভাজি খেয়ে  থাকি। যেমন, ডিম দিয়ে আলু রান্না রেসিপি, ডিম আলুর ঝোল, মাছের ডিম দিয়ে আলু ভাজি রেসিপি ইত্যাদি।

আলু এবং ডিমের উপকারিতা অনেক। আলুতে রয়েছে ভিটামিন বি আর সি, শর্করা, আমিষ, পটাসিয়াম ইত্যাদি।  ডিম অতি পুষ্টিসমৃদ্ধ একটি খাবার।  পুষ্টিগুনে ভরপুর এ  খাবার আমাদের স্বাস্থ্যের জন্য অনেক উপকারি। ডিমে রয়েছে প্রোটিন, ভিটামিন ও স্বাস্থ্যকর চর্বিতে ভরপুর। সঠিক খাদ্য তালিকা মেনে চলতে গেলে এটি কোনোভাবেই বাদ দেওয়া ঠিক নয়। 


Related Post: কিভাবে আলু ভাজি করা হয় 


 তো, চলুন জেনে নেওয়া যাক ডিম দিয়ে আলু ভাজি রেসিপি তৈরি করতে আপনার কী কী উপকরণ লাগবে-

ডিম দিয়ে আলু ভাজি রেসিপি এর জন্য যা যা উপকরণ লাগবেঃ-

  • আলু -৩টি  [ কুঁচি করে কাটা]
  • ডিম- ১টি
  • পেঁয়াজ -২টি  [কুঁচি করে কাটা]
  • হলুদ গুড়ো-  আধা চা চামচ
  • লবণ – পরিমানমতো
  • কাঁচামরিচ- ২-৩টি  [পালি করে কাটা]
  • তেল – ৩ চা চামচ  [সয়াবিন তেল]
  •  ধনিয়া পাতা- [কুঁচি করে কাটা]

এবার জেনে নিই ডিম দিয়ে আলু ভাজি রেসিপি তৈরি করার নিয়মঃ-

প্রথমে একটি পরিষ্কার কড়াই নিতে হবে। এর মধ্যে ৩ চা চামচ সয়াবিন তেল দিয়ে দিব। তেল গরম হলে এতে পেঁয়াজ কুঁচি দিয়ে দিতে হবে। পেঁয়াজ বাদামি রঙের হয়ে এলে এতে আলু দিয়ে দিতে হবে। এবারে এর সাথে একে একে লবণ পরিমানমতো, হলুদ গুঁড়ো আধা চা চামচ, কাঁচামরিচ পালি করে কাটা ২-৩টি দিয়ে দিব। এই সবকিছু একসাথে দিয়ে ২-৩ মিনিট নাড়তে হবে। তারপর ঢাকনা দিয়ে ঢেকে দিব ৫ মিনিট, সিদ্ধ হওয়ার জন্য। ঢাকনা খুলে ১টি ডিম ভেঙ্গে উপরে ছড়িয়ে দিব এবং আলুর সাথে মিক্স হওয়ার জন্য নাড়তে থাকবো। 

কিছুক্ষন নেড়ে ডিম দিয়ে আলু ভাজি- এর সবকিছু পরিমানে সঠিক থাকলে এবং কোন কিছু কম বেশি না হলে, (মানে আপনি একটু টেস্ট করে দেখে নিবেন) আলু সিদ্ধ হওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করুন। আলু সিদ্ধ হয়ে গেলে পরিমান মত ধনিয়া পাতা কুচি কুচি করে কেটে দিবেন। ধনিয়া দেয়ার পর অল্প কিছু সময় রেখে একটু নেড়ে চুলা থেকে নামিয়ে ফেলুন।

তৈরি হয়ে গেল আপনার পছন্দের ডিম দিয়ে আলু ভাজি ।  ডিম দিয়ে আলু ভাজি রেসিপিটি সুন্দর করে সাজিয়ে খাওয়া শুরু করুন, প্রিয়জন, বাচ্ছা বা মা বাবা ভাই বোন কে পরিবেশন করুন। 


Related Post: কিভাবে করলা ভাজি করা হয় 


 

নিচে কমেন্টস বক্সে আর্টিকেল বিষয়ে মতামত দিন

শেয়ার করার মাধ্যমে আপনার বন্ধুদের এই আর্টিকেল বিষয়ে জানার সুযোগ করে দিন